You are currently viewing Vitamin bengali pdf

Vitamin bengali pdf

ভিটামিনের নাম, রাসায়নিক নাম, উৎস & অভাবজনিত রোগ

হ্যালো বন্ধুরা আমরা তোমাদের জন্য ভিটামিনের নতুন PDF  নিয়ে এসেছি । আজ আমাদের এই PDF এ থাকছে  ভিটামিনের নাম, রাসায়নিক নাম, উৎস & অভাবজনিত রোগ এর সমন্ধে । আশা করছি এই প্রশ্নগুলি তোমাদের বিভিন্ন চাকরীর পরীক্ষার প্রস্তুতির ক্ষেত্রে সাহায্য করবে।

ভিটামিনের নাম

রাসায়নিক নাম

উৎস

অভাবজনিত রোগ

ভিটামিন- A (অ্যান্টি- জেরপথ্যালমিক ফ্যাক্টর)

রেটিনাল

বাধাকপি, পাকা টম্যাটো, গাজর, কড ওহাঙর মাছের যকৃৎ নিঃসৃত তেল

রাতকানা বা জেরথ্যালমিক থ্যালমিয়া, ফ্রিনোডার্মা এবং কেরাটোম্যালেশিয়া

ভিটামিন- B1 (অ্যান্টি বেরিবেরি ফ্যাক্টর)

থিয়ামিন

ডিমের কুসুম, চেঁকিছাটা চাল, ঈস্ট, বিন, ফুলকপি, বিট, লেটুস শাক

বেরিবেরি, ক্ষুধামান্দ্য, স্নায়ু

দৌর্বল্য, ওয়েরনিকেকোর সাকফ লক্ষণ

ভিটামিন- B2

রাইবোফ্ল্যাভিন

যকৃৎ, ডিমের সাদা অংশ, অঙ্কুরিত গম, কলমি শাক, নটে শাক, পালংশাক

চেইলোসিস এবং স্নায়ুতন্ত্র চক্ষু, ত্বক প্রভৃতির ক্ষয়

ভিটামিন- B3 (পেলোগ্রা প্রিভেন্টিভ ফ্যাক্টর বা PPP)

নিয়াসিন

ডিমের কুসুম, দানা শস্যের খোসা, গম, বিন

পেলগ্রা

ভিটামিন- B5

প্যান্টোথেনিক অ্যাসিড

যকৃৎ, সুজি, মটর, আখের গুড়

অনিদ্রা, স্নায়ুদৌর্বল্য

ভিটামিন- B6

পাইরিডক্সিন

দুধ, ডিম, মাছ, মাংস, গমের ভুষি, অঙ্কুরিত শস্য

ডার্মাটাইটিস, অ্যানিমিয়া

ভিটামিন- B7

বায়োটিন

শিম, ঈস্ট, লাল আটা, ভাতের ফ্যান, দুধ, ডিম

বৃদ্ধি ব্যাহত , মেগালো-ব্লাস্টিক অ্যানিমিয়া

ভিটামিন- B9

ফোলিক অ্যাসিড

 

 

ভিটামিন- B12

সায়ানোকোবালামিন

মাছ, মাংস, দুধ, ডিম, স্ট্রে- প্টোমাইসিস ছত্রাক

গ্যাসট্রাইটিস, পারনিসিয়াস অ্যানিমিয়া

ভিটামিন- C (অ্যান্টি স্করবিউটিক ফ্যাক্টর)

অ্যাসকরবিক অ্যাসিড

আমলকি, লেবু, পেয়ারা, কাচ লংকা

স্কার্ভি, দাঁতের গোড়া ফোন স্করবিউটিক ফ্যাক্টর পুঁজ ও রক্ত পড়া

ভিটামিন- D (অ্যান্টি রিকেটিক ফ্যাক্টর)

আর্গোক্যালসিফেরল (D2) ও কোলক্যালসিফেরল (D3)

উদ্ভিজ্জ তেল, কড, হ্যালিবাট প্রভৃতি মাছের যকৃতের তেল

রিকেট (বাচ্চাদের), অস্টিও ম্যালেসিয়া (বড়োদের)

ভিটামিন- E (অ্যান্টি স্টেরিলিটি ফ্যাক্টর)

টোকোফেরল

লেটুস শাক, মটরশুটি, উদ্ভিজ্জ তেল, ডিম, দুধ

বন্ধ্যাত্ব , পেশির দৈর্বলতা, জনন অঙ্গের বৃদ্ধি ব্যাহত হয়

ভিটামিন- K (অ্যান্টি হেমারেজিক ফ্যাক্টর)

ফাইলোকুইননান

টাটকা শাকসবজি , পালং শাক, টম্যাটো, বাঁধাকপি , সয়াবিন , পাঠার যকৃৎ

রক্তক্ষরণ বা হেমারেজ

 

1) ভিটামিন- A (অ্যান্টি- জেরপথ্যালমিক ফ্যাক্টর)

রাসায়নিক নাম =  রেটিনাল

উৎস = বাধাকপি, পাকা টম্যাটো, গাজর, কড ওহাঙর মাছের যকৃৎ নিঃসৃত তেল .

অভাবজনিত রোগ = রাতকানা বা জেরথ্যালমিক থ্যালমিয়া, ফ্রিনোডার্মা এবং কেরাটোম্যালেশিয়া .

2) ভিটামিন- B1 (অ্যান্টি বেরিবেরি ফ্যাক্টর)

রাসায়নিক নাম = থিয়ামিন

উৎস = ডিমের কুসুম, চেঁকিছাটা চাল, ঈস্ট, বিন, ফুলকপি, বিট, লেটুস শাক .

অভাবজনিত রোগ = বেরিবেরি, ক্ষুধামান্দ্য, স্নায়ু দৌর্বল্য, ওয়েরনিকেকোর সাকফ লক্ষণ .

3) ভিটামিন- B2 

রাসায়নিক নাম = রাইবোফ্ল্যাভিন

উৎস = যকৃৎ, ডিমের সাদা অংশ, অঙ্কুরিত গম, কলমি শাক, নটে শাক, পালংশাক .

অভাবজনিত রোগ = চেইলোসিস এবং স্নায়ুতন্ত্র চক্ষু, ত্বক প্রভৃতির ক্ষয় .

4) ভিটামিন- B3 (পেলোগ্রা প্রিভেন্টিভ ফ্যাক্টর বা PPP)

রাসায়নিক নাম = নিয়াসিন

উৎস = ডিমের কুসুম, দানা শস্যের খোসা, গম, বিন .

অভাবজনিত রোগ = পেলগ্রা .

5) ভিটামিন- B

রাসায়নিক নাম = প্যান্টোথেনিক অ্যাসিড

উৎস = যকৃৎ, সুজি, মটর, আখের গুড় .

অভাবজনিত রোগ = অনিদ্রা, স্নায়ুদৌর্বল্য .

6) ভিটামিন- B

রাসায়নিক নাম = পাইরিডক্সিন

উৎস = দুধ, ডিম, মাছ, মাংস, গমের ভুষি, অঙ্কুরিত শস্য .

অভাবজনিত রোগ = ডার্মাটাইটিস, অ্যানিমিয়া .

7) ভিটামিন- B

রাসায়নিক নাম = বায়োটিন

উৎস = শিম, ঈস্ট, লাল আটা, ভাতের ফ্যান, দুধ, ডিম .

অভাবজনিত রোগ = বৃদ্ধি ব্যাহত , মেগালো-ব্লাস্টিক অ্যানিমিয়া .

8) ভিটামিন- B9

রাসায়নিক নাম = ফোলিক অ্যাসিড

উৎস = শিম, ঈস্ট, লাল আটা, ভাতের ফ্যান, দুধ, ডিম .

অভাবজনিত রোগ = বৃদ্ধি ব্যাহত , মেগালো-ব্লাস্টিক অ্যানিমিয়া .

9) ভিটামিন- B12

রাসায়নিক নাম = সায়ানোকোবালামিন

উৎস = মাছ, মাংস, দুধ, ডিম, স্ট্রে- প্টোমাইসিস ছত্রাক .

অভাবজনিত রোগ = গ্যাসট্রাইটিস, পারনিসিয়াস অ্যানিমিয়া

10) ভিটামিন- C (অ্যান্টি স্করবিউটিক ফ্যাক্টর)

রাসায়নিক নাম = অ্যাসকরবিক অ্যাসিড

উৎস = আমলকি, লেবু, পেয়ারা, কাচ লংকা .

অভাবজনিত রোগ = স্কার্ভি, দাঁতের গোড়া ফোন স্করবিউটিক ফ্যাক্টর পুঁজ ও রক্ত পড়া .

11) ভিটামিন- D (অ্যান্টি রিকেটিক ফ্যাক্টর)

রাসায়নিক নাম = আর্গোক্যালসিফেরল (D2) ও কোলক্যালসিফেরল (D3)

উৎস = উদ্ভিজ্জ তেল, কড, হ্যালিবাট প্রভৃতি মাছের যকৃতের তেল .

অভাবজনিত রোগ = রিকেট (বাচ্চাদের), অস্টিও ম্যালেসিয়া (বড়োদের) .

12) ভিটামিন- E (অ্যান্টি স্টেরিলিটি ফ্যাক্টর)

রাসায়নিক নাম = টোকোফেরল

উৎস = লেটুস শাক, মটরশুটি, উদ্ভিজ্জ তেল, ডিম, দুধ .

অভাবজনিত রোগ = বন্ধ্যাত্ব , পেশির দৈর্বলতা, জনন অঙ্গের বৃদ্ধি ব্যাহত হয় .

13) ভিটামিন- K (অ্যান্টি হেমারেজিক ফ্যাক্টর)

রাসায়নিক নাম = ফাইলোকুইননান

উৎস = টাটকা শাকসবজি , পালং শাক, টম্যাটো, বাঁধাকপি , সয়াবিন , পাঠার যকৃৎ .

অভাবজনিত রোগ = রক্তক্ষরণ বা হেমারেজ .

এই PDF টি Download করতে নিচের লিংকে ক্লিক করুন ।

Leave a Reply